সিলেট জাপায় উত্তেজনা আতিক-বাবুলের সমর্থকরা সংঘর্ষে জড়ালেন ঢাকায় » Sheersha Khobor

সিলেট জাপায় উত্তেজনা আতিক-বাবুলের সমর্থকরা সংঘর্ষে জড়ালেন ঢাকায়

বৃহস্পতিবার, ১০ জুন ২০২১
শীর্ষখবর

সিলেটের আতিক-বাবুলের দ্বন্দ্বের উত্তাপ ছড়ালো ঢাকায়। দুই নেতার পক্ষের নেতাকর্মীরা সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। গতকাল দুপুরে জাতীয় পার্টির চেয়ারপারসনের কার্যালয়ের সামনে এ ঘটনা ঘটে। পরে আতিক ও বাবুল দু’জন পার্টি অফিস থেকে বেরিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন। এ ঘটনায় সিলেটেও জাতীয় পার্টিতে দু’পক্ষ মুখোমুখি অবস্থায় রয়েছেন। দক্ষিণ সুরমা জাতীয় পার্টির নেতাকর্মীরা জানিয়েছেন- আতিকুর রহমান আতিকের সমর্থনে সিলেট থেকে যাওয়া নেতাকর্মীদের ওপর ঢাকার বহিরাগতদের দিয়ে বাবুল হামলা চালিয়েছেন। অন্যদিকে- বাবুলের সমর্থিত নেতারা বিষয়টি অস্বীকার করেছেন। সিলেট-৩ আসনের উপনির্বাচনে অংশ নিচ্ছে জাতীয় পার্টি।
এ কারণে জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় দপ্তর থেকে প্রার্থীদের জন্য দলীয় মনোনয়নপত্র ছাড়া হয়। এর প্রেক্ষিতে কয়েকজন নেতা উপনির্বাচনে প্রার্থী হতে ইতিমধ্যে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করে দলীয় কার্যালয়ে জমা দিয়েছেন। গতকাল বিকালে ছিল দলীয় চেয়ারম্যানের বনানীর কার্যালয়ে প্রার্থীদের সাক্ষাৎকার। সিলেট-৩ আসনের জাতীয় পার্টির প্রার্থী তালিকায় দু’জনের নাম বেশি উচ্চারিত হচ্ছে। প্রচার-প্রচারণায়ও তারা দু’জন এগিয়ে। প্রথম থেকেই মাঠে রয়েছেন দলের কেন্দ্রীয় প্রেসিডিয়াম সদস্য আলহাজ আতিকুর রহমান আতিক। পরে এই আসনে প্রার্থী হতে প্রচারণা শুরু করেন জাতীয় পার্টির নবাগত নেতা ও দলের কেন্দ্রীয় সদস্য নজরুল ইসলাম বাবুল। সিলেট-৩ আসনে এই দুই প্রার্থীর পক্ষের জাপার নেতাকর্মীরা বিভক্ত। সিলেট জাতীয় পার্টির সিনিয়র কয়েকজন নেতা নজরুল ইসলাম বাবুলকে ইতিমধ্যে প্রার্থী ঘোষণা দিয়ে প্রচারণায় নেমেছেন। আর আতিকের পক্ষে দক্ষিণ সুরমা, বালাগঞ্জ ও ফেঞ্চুগঞ্জের জাতীয় পার্টির নেতাকর্মীদের বড় অংশ ঐক্যবদ্ধ রয়েছে। গতকাল দলীয় প্রধানের কার্যালয়ের প্রার্থীদের সাক্ষাৎকারকে কেন্দ্র করে আতিক ও বাবুল দু’জনই নিজেদের পক্ষে শোডাউনের প্রস্তুতি নেন। আতিকুর রহমান আতিকের সমর্থনে কয়েকশ’ নেতাকর্মী মঙ্গলবার রাতে গাড়ি ভাড়া করে ঢাকায় যান। ঢাকা থেকেও কয়েকজন লোক সেখানে যান। গতকাল সকাল থেকে চেয়ারপারসনের কার্যালয়ের সামনে বাবুলের অংশের লোকজন উপস্থিত ছিল। তারা বাবুলের সমর্থনে মিছিলও দিচ্ছিলো। বেলা দেড়টার দিকে আতিকুর রহমান আতিককে নিয়ে মিছিল সহকারে কয়েকশ’ নেতাকর্মী চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে ঢোকেন। এ সময় বাবুলের সমর্থকদের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন নেতাকর্মীরা। সংঘর্ষকালে দেশীয় অস্ত্র ও ধারালো ছুরির আঘাতে আতিকুর রহমান আতিকের কয়েকজন সমর্থক গুরুতর আহত হন বলে জানিয়েছেন নেতাকর্মীরা। সংঘর্ষের সময় দলীয় কার্যালয়েই ছিলেন আতিক ও বাবুল। খবর পেয়ে তারা ছুটে এসে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করেন। একপর্যায়ে পুলিশ গিয়ে সেখানে অবস্থান নিলে বিবদমান অংশের নেতাকর্মীরা সরে যান। সিলেট জেলা জাতীয় পার্টির সিনিয়র সদস্য এমএ শহীদ সাংবাদিকদের জানিয়েছেন- ‘আমরা আতিকুর রহমান আতিককে নিয়ে বনানীর পার্টি অফিসের সামনে স্লোগান দেয়ার সময় নজরুল ইসলাম বাবুল ঢাকার ভাড়াটে কিছু লোক নিয়ে এসে আমাদের ওপর হামলা করেন। এ সময় তারা লাঠি ও ছুরি দিয়ে তাদের ওপর হামলা করলে কয়েকজন আহত হন। তাদেরকে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।’ আহতদের মধ্যে রয়েছেন- দক্ষিণ সুরমা উপজেলা যুব সংহতির যুগ্ম আহ্বায়ক ফয়জুল ইসলাম গেদুল, জেলা জাতীয় পার্টির সাবেক দপ্তর সম্পাদক মামুনুর রশিদ মামুন, হাসান, বদরুলসহ আরও কয়েকজন। দক্ষিণ সুরমা জাতীয় পার্টির সদস্য সচিব তাজউদ্দিন এপলু মানবজমিনকে জানিয়েছেন- আতিকুর রহমান আতিক বিশাল বহর নিয়ে চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে গেলে এ ঘটনা ঘটে। আহতদের মধ্যে বেশির ভাগই আতিকের সমর্থকরা। তিনি জানান- পরে অবশ্য দু’নেতা বেরিয়ে এসে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করেন। ঘটনাটি অনাঙ্ক্ষিত ও দুঃখজনক উল্লেখ করে এপলু বলেন- করোনাকালে প্রার্থীদের আরও বেশি দায়িত্বশীল ও সচেতন হওয়া প্রয়োজন। কর্মীরা যাতে সংঘর্ষে না জড়ায় সেদিকে প্রার্থীদেরই বেশি নজর দেয়া প্রয়োজন বলে জানান তিনি। বাবুলের অনুসারীরা জানিয়েছেন- আতিকের সমর্থনে থাকা নেতাকর্মীরা তাদের ওপর হামলা চালিয়েছে। এতে তাদের পক্ষের কয়েকজনও আহত হয়েছেন।

শীর্ষ খবর/আ/আ

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Facebook Page

Sheersha Khobor UK

বিজ্ঞাপন

একটি ভোরের প্রতীক্ষায়

Hameem Travel

add-1